0

আগের স্মার্টফোনগুলোর ব্যাপক সাফল্যের পর স্পার্ক সিরিজের আরেক চমক ‘স্পার্ক ৬’ নিয়ে হাজির হলো টেকনো মোবাইল। সর্বোচ্চমানের ছয়টি আপগ্রেডেড ফিচারসহ বাংলাদেশের বাজারে আসা নতুন এ স্মার্টফোনটির দাম ক্রেতাদের নাগালের মধ্যেই রাখা হয়েছে।

স্পার্ক ৬ ফোনটিতে একটি অনন্য ক্ষমতাধর হেলিও জি৭০ অক্টা-কোর চিপসেট, ৫০০০ এমএএইচ বিশাল ব্যাটারি, ৬.৮ ইঞ্চির একটি এইচডি+ডট-ইন আকর্ষনীয় বড় ডিসপ্লে, এআই প্রযুক্তির ১৬ মেগাপিক্সেল প্রাইমারি ক্যামেরার সাথে আরো তিনটি ক্যামেরা, অডিও এবং সফটওয়্যার ফিচার রয়েছে। দুটি নজরকাড়া ওশান ব্লু ও কমেট ব্লাক রঙে আসা টেকনো ‘স্পার্ক ৬’ বাংলাদেশের বাজারে মাত্র ১৩,৯৯০ টাকায় পাওয়া যাচ্ছে।

ট্রানশান বাংলাদেশ লিমিটেডের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) রেজওয়ানুল হক বলেন, “গ্রাহকদের প্রয়োজনের কথা চিন্তা করে বাজারে থাকা অন্য প্রতিযোগীদের ছাড়িয়ে গিয়ে সেরা স্মার্টফোন নিয়ে আসতে প্রতিনিয়ত চেষ্টা করে যাচ্ছে প্রস্তুতকারী প্রতিষ্ঠানগুলো। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে সবসময় যুক্ত থাকা, উন্নত মানের ছবি তোলা, বিনোদন বা মোবাইল গেমিংয়ে আগ্রহীদের জন্য শক্তিশালী প্রসেসর, বড় ডিসপ্লে ও বিশাল ক্ষমতার ব্যাটারি রয়েছে এমন স্মার্টফোন চান সবাই। বাংলাদেশের বাজারে আসা নতুন স্পার্ক ৬ মোবাইলে রয়েছে হেলিও জি৭০ গেমিং প্রসেসর যা গেম প্রেমীদের সব চাহিদা পূরণ করবে।”

টেকনো স্পার্ক ৬-এ থাকা হেলিও জি৭০ অক্টা-কোর চিপসেট স্মার্টফোনটির প্রসেসিংয়ের গতি ৬০% পর্যন্ত বাড়িয়ে তুলতে পারবে এবং সামগ্রিক পারফরম্যান্স ২৬% পর্যন্ত বাড়াবে। যা ব্যবহারকারীদের মাল্টি-টাস্কিং ও গেমিংয়ের পাশাপাশি বন্ধুদের সাথে কথা বলতে ও দেখতে পারবে।

আধুনিকতা ও সলিউশনের সাথে স্পার্ক ৬ স্মার্টফোনটিতে আরো বেশি ছবি, গান, ভিডিও, গেমস এবং ফাইল জমা রাখার জন্য ১২৮ গিগাবাইট স্টোরেজ এবং জনপ্রিয় গেমগুলো আরো সাবলীলভাবে খেলার সুবিধা দিতে ফোনটিতে ৪জিবি র‌্যাম ব্যবহার করা হয়েছে। অ্যান্ড্রয়েড ১০+ হাই-ওএস ৭.০ অপারেটিং সিস্টেমের এ ডিভাইসটিতে শক্তিশালী ৫০০০ এমএএইচ ক্ষমতার ব্যাটারি রয়েছে যা ২৯.৩৭ দিনের স্ট্যান্ডবাই সুবিধা দিবে।

টেকনোর আগের ফোনগুলো থেকে এক্সটারনাল ও ইন্টারনাল ফিচারের ক্ষেত্রে আমূল পরিবর্তন আনা স্পার্ক ৬ ফোনটির ৬.৮ ইঞ্চির এইচডি+ডট-ইন আকর্ষনীয় বড় ডিসপ্লে ব্যবহারকারীদের ভিউইংয়ের ক্ষেত্রে অকল্পনীয় অভিজ্ঞতা দিবে।

স্পার্ক ৬ স্মার্টফানটিতে রয়েছে এআই (আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্স) প্রযুক্তি সমৃদ্ধ কোয়াড রিয়ার ক্যামেরা এবং তাতে ১৬এমপি মেইন ক্যামেরা + ২এমপি ম্যাক্রো + ২এমপি ডেপথ + কোয়াড-এলইডি ফ্ল্যাশসহ এআই লেন্স রয়েছে। সেলফি তোলার জন্য সামনে ডুয়েল-এলইডি ফ্ল্যাশসহ ৮এমপি ওয়াইড সেন্সর রয়েছে।

ডিভাসটিতে থাকা শক্তিশালী আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্স ১৮টি ভিন্ন ধরনের দৃশ্য ধারণ করতে পারে এবং ৯৫% রিকগনিশন রেটসহ এআই ভিডিও ধারণ করতে পারে।

মোহাম্মদ রাসেল
লেখালেখি করতে ভালোবাসি! তাই সবার মাঝে সব জ্ঞান ভাগ করতে এসেছি! 😃

এবার সরাসরি কেনাকাটা করা যাবে ইউটিউবে

Previous article

সাইলেন্ট থাকা স্মার্টফোন খুঁজে পাবেন যেভাবে

Next article

Comments

Leave a reply

আরও কিছু